1. admin@dainiktrinamoolsangbad.com : admin :
রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৪:২৮ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
পিরোজপুরে সাংবাদিকদের সাথে চিত্রনায়ক জায়েদ খানের মতবিনিময়। পিরোজপুরে কিডনী রোগীর চিকিৎসায় ও মাদ্রাসা স্থাপনে আর্থিক সহায়তা প্রদান। মুন্সীগঞ্জে বিএনপি’র উপর পুলিশের গুলির প্রতিবাদে পিরোজপুরে বিক্ষোভ মিছিল। পিরোজপুরে অপরাজিতার অভিজ্ঞতা বিনিময় বিষয়ক সভা অনুষ্ঠিত। ভান্ডারিয়ায় হামদর্দ পল্লি চিৎিসক সম্মেলন অনুষ্ঠিত ব্যবসায়ীকে অপহরণ মামলায় সাত “ডিবি পুলিশের কারাদণ্ড। প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে দেশে শিক্ষা ব্যবস্থার দ্রুত উন্নতি হচ্ছে.. মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম। হিজলায় পানিতে পড়ে আপন দুই বোনের মৃত্যু। দ্রুত টিকা নিন অক্টোবরের পর পাবেন না -স্বাস্থ্যমন্ত্রী! জাল টাকার ১৫ কোম্পানির সন্ধান!

মানবদেহে যে ব্লাড গ্রুপ থাকলে’ করোনায় মৃত্যুর ঝুঁকি বেশি

নিজস্ব প্রতিনিধি:-
  • আপডেট সময় : সোমবার, ৭ মার্চ, ২০২২
  • ২১৬ বার পঠিত

মানবদেহে যে ব্লাড গ্রুপ

 করোনায় মৃত্যুর ঝুঁকি বেশি

নিজস্ব প্রতিনিধি:- সম্প্রতি কিংস কলেজ লন্ডনের একটি গবেষণা কার্য পরিচালনা করা হয়। পিএলওএস জেনেটিক্স জার্নালে প্রকাশিত হওয়া ওই গবেষণাটির উদ্দেশ্য ছিলো ব্লাড গ্রুপের সঙ্গে করোনায় মৃত্যুর সম্পর্ক খুঁজে বের করা। আর এতেই গবেষকরা জানতে পেরেছেন চাঞ্চল্যকর কিছু তথ্য।

সাধারণত মানুষের রক্তের গ্রুপ চার ধরনের হয়ে থাকে। এগুলো হলো এ, বি, এবি এবং ও। আধুনিক চিকিৎসাবিজ্ঞানে এই রক্তের গ্রুপের গুরুত্ব অপরিসীম। এসব ব্লাড গ্রুপে করোনা ভিন্ন ভিন্ন উপায়ে তার আগ্রাসন শরীরে কায়েম করে বলে গবেষকরা জানিয়েছেন।

হাসপাতালে অসংখ্য রোগী দেখে বিশেষজ্ঞরা জানতে চেষ্টা করেছেন কোন ব্লাড গ্রুপের মানুষের মধ্যে বেশি সমস্যা দেখা যাচ্ছে। গবেষণায় দেখা যায়, এ ব্লাড গ্রুপের রক্ত যাদের শরীরে আছে তারাই এই রোগে বেশি আক্রান্ত হতে পারেন। তাই এই গ্রুপের রক্তের অধিকারী ব্যক্তিদের অবশ্যই সতর্ক থাকতে হবে বলে মনে করেন চিকিৎসকরা। কারণ করোনা ভাইরাসের কবলে এলে তাদের সমস্যা হওয়ার আশঙ্কা অন্যদের তুলনায় কিছুটা হলেও বেশি।

গবেষণায় গুরুতর করোনার সঙ্গে জড়িত হতে পারে বলে ৩ হাজার প্রোটিন চিহ্নিত করে পরীক্ষার কার্য শুরু করা হয়। এক্ষেত্রে গবেষণা শেষে বিজ্ঞানীরা ৬টি এমন প্রোটিন চিহ্নিত করেন যা গুরুতর করোনার সঙ্গে জড়িত। এদিকে ৮টি এমন প্রোটিন পাওয়া গেছে যা এই ইনফেকশন থেকে মানুষকে বাঁচাতে পারে। এই গবেষণা অনুযায়ী, এমন একটি প্রোটিন ইতোমধ্যেই পাওয়া গিয়েছে যা গুরুতর রোগও তৈরি করতে পারে।

এই গবেষণার মাধ্যমে আরও যা জানা যায় তাহলো এনজাইম। এর মাধ্যমে বোঝা যাবে কার হাসপাতালে ভর্তি হতে হবে এবং কার অক্সিজেন সাপোর্টের প্রয়োজন হবে। সেই সঙ্গে এ থেকে জানা যাবে ভবিষ্যতে গুরুতর রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা।

তাই করোনাকে জয় করার আত্মবিশ্বাসে মাস্ক ও স্যানিটাইজার ব্যবহার করতে একদমই ভুলে যাওয়া চলবে না। গবেষকরা মনে করছেন, করোনা বিধি মানতে পারলেই আপনি ও সমাজ সুরক্ষিত থাকবেন। ভ্যাকসিন নেওয়ার পরও ভিড়কে এড়িয়ে চলার গুরুত্ব দেন তারা।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর
© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২০ দৈনিক তৃণমূল সংবাদ
Theme Customized BY Theme Park BD